Saturday, October 22, 2022

বিচ্ছেদের পরেও স্বামীর চিহ্ন কেন মুছতে পারছেন না ‘কৃষ্ণকলি’ তিয়াশা!

গোবরডাঙ্গা থেকে টলিউডে আসা স্বামী সুবান রায়ের হাত ধরেই। নাটক স্কুল থেকে ধারাবাহিকে সুযোগ, তারপরেই ঘরে ঘরে কৃষ্ণকলির শ্যামা হয়ে প্রবেশ করেন তিয়াশা রায়।

ধারাবাহিক কৃষ্ণকলি শেষের পাশাপাশি ব্যাক্তিগত সম্পর্কেও ইতি টানেন অভিনেত্রী তিয়াশা। স্বামী সুবান রায়ের সঙ্গে বিবাহ বিচ্ছেদ আইনি ভাবে করে নিলেও এখনও স্বামীর দেওয়া গুরুত্বপূর্ন জিনিস বয়ে চলেছেন অভিনেত্রী। কি সেই জিনিস?

দুই অক্ষরের পদবী ‘রায়’ নিয়ে তিয়াশা এখনও জ্বলজ্বল। কেন স্বামীর পদবী ব্যাবহার করছেন? উত্তর দিয়েছেন অভিনেত্রী নিজেই। তবে তার আগে দেখে নেওয়া যাক অভিনেতা তথা অভিনেত্রীর প্রাক্তন স্বামী এই বিয়ে ও বিচ্ছেদ নিয়ে কি বলেছেন বিভিন্ন সংবাদমাধ্যমে।

একদা সুবান রায় অভিমানের সুরেই বলেন, “তিয়াসার তো আমার কিছুই ভাল লাগে না। আমি নাকি ভাল রান্না করি না। আমি নাকি কিছুই পারি না। শ্বশুরবাড়িতে গিয়ে গোটা মুরগি রান্না করেছি।

নানা রকম রান্না করে শ্বশুরবাড়ির লোককে খাইয়েছি। তাঁরা অবশ্য ভাল বলেছেন। কত রকম স্যালাড তৈরি করেছি…”দেখতে দেখতে প্রায় চার বছরের দাম্পত্য শেষ হয়েছে এই জুটির।

কিন্তু থেকে গিয়েছে বন্ধুত্ব।অন্তত এমন বন্ধুত্বের আভাস দিয়েছেন তিয়াশা। সমস্ত তিক্ততা ভুলে কাজে মন দিয়েছেন অভিনেত্রী। পাশাপাশি খুলতে চান ইউটিউব চ্যানেল। চ্যানেলের নামও ঠিক করে ফেলেছেন অভিনেত্রী।

অথচ স্বামীর দেওয়া গুরুত্বপূর্ন পদবী এখনও মুছে ফেলতে পারছেন না। এই প্রসঙ্গে, অভিনেত্রীর সাফ জবাব ‘রায়’ পদবীটি নামের পাশে থাকায় ব্যক্তিগত ভাবে অসুবিধা হচ্ছে।

অভিনেত্রী চেষ্টা করছেন যত তাড়তাড়ি সম্ভব এই পদবীটি সরিয়ে দেওয়ার। ইনস্টাগ্রাম কর্তৃপক্ষকে একাধিক বার মেল করেছেন। অবশ্য, ও দিক থেকে এখনও কোনও সাড়া পাননি। আশা রাখছেন খুব তাড়তাড়ি এই পদবী সরে যাবে।

Latest news
Related news