Saturday, October 22, 2022

সিনেমার ‘রাজপুত্র’র হারিয়ে যাওয়ার এক বছর

সত্তর-আশি দশকে বাংলা চলচ্চিত্রে এক সুদর্শন নায়ক ছিল। চওড়া বক্ষ ও সুন্দর চাহনিতে যেকোনো নারীর মন কাড়বেই। আসল নাম মেজবাহউদ্দিন আহমেদ। সবাই চেনে নায়ক ওয়াসিম নামে। সোনালি দিনের এক উজ্জ্বল নক্ষত্র। স্কুলজীবন থেকেই তুখোড় খেলোয়াড় ছিলেন ওয়াসিম।

এরপর আনন্দমোহন কলেজে পড়েন। কলেজে পড়া অবস্থায় নাম করেছিলেন বডি বিল্ডার হিসেবে। ১৯৬৪ সালে তিনি বডি বিল্ডিংয়ের জন্য ‘মিস্টার ইস্ট পাকিস্তান’ খেতাব অর্জন করেন। চারদিকে তখন তার সুনাম ছড়িয়ে পড়ে।

ভর্তি হন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ইতিহাস বিভাগে। ওয়াসিম স্নাতকোত্তর ডিগ্রি অর্জন করেন। বিশ্ববিদ্যালয় জীবনে তিনি ছিলেন বেশ জনপ্রিয়। ছাত্রজীবনে সেই সময়ই নিয়মিত হলিউডের ছবি দেখতেন মেজবাহ। কিন্তু কখনো ভাবেননি অভিনয়ে ক্যারিয়ার গড়ার কথা। পেশা হিসেবে সেনাবাহিনী বা পুলিশ প্রশাসনকে বেছে নিতে চেয়েছিলেন তিনি। একদিন এফডিসিতে ‘ওরা ১১ জন’ ছবির শুটিং দেখতে এসেছিলেন মেজবাহ।
কারণ, নায়ক খসরু ছিলেন তার ঘনিষ্ঠ বন্ধু। নায়ক সোহেল রানার সঙ্গেও আগে থেকেই পরিচয় ছিল বিশ্ববিদ্যালয়ে পড়াকালীন। সেদিন অনেক পরিচালকের নজর কাড়েন সুদর্শন মেজবাহ। কিন্তু তখনো তিনি অভিনয়ের কথা ভাবেননি।

১৯৭২ সালে ‘ছন্দ হারিয়ে গেল’ সিনেমায় ছোট দৃশ্যে অভিনয় করেন। নায়ক রাজ্জাককে ইংরেজিতে একটি সংলাপ বলতে হবে। সেই দৃশ্য এক কাটেই করে ফেলেন মেজবাহ। এতে উপস্থিত সবাই প্রশংসা করেছিলেন তার। এরপর থেকে প্রায়ই এফডিসিতে আসতেন। এস এম শফী কীভাবে ছবি নির্মাণ করেন তা দেখতে। নজরে পড়েন পরিচালক মহসিনের চোখে।
‘রাতের পর দিন’ ছবির নায়ক হওয়ার প্রস্তাব পেলেন মেজবাহ। মনে সংশয় ছিল। কারণ, সেই সময় সেনাবাহিনী থেকে ডাক পড়েছিল তার। পরিবারকে না জানিয়ে হুট করে সিদ্ধান্ত নিয়ে ফেলেন সিনেমায় অভিনয়ের। এরপর শুটিং শুরু হয়। পরিচালক মেজবাহর নাম পালটে রাখেন ওয়াসিম। সেই থেকে মেজবাহ হয়ে গেলেন বাংলা চলচ্চিত্রের সুপার হিট নায়ক ওয়াসিম।

১৯৭৩ সালে মহা সমারোহে মুক্তি পায় ‘রাতের পর দিন’। তারপর আর ফিরে তাকাতে হয়নি তাকে। ১৯৭৬ সালে মুক্তি পাওয়া ওয়াসিম অভিনীত ও এস এম শফী পরিচালিত ‘দি রেইন’ পৃথিবীর ৪৬টি দেশে মুক্তি পেয়েছিল। ছবিটি বাম্পার হিট হয়।
১৯৭৩ থেকে ১৯৯০ সাল পর্যন্ত ঢাকার চলচ্চিত্রে ওয়াসিম ছিলেন শীর্ষ নায়কদের একজন। এ সময় দেড় শতাধিক সুপার হিট সিনেমা দিয়েছেন এই কিংবদন্তি অভিনেতা। হাতে গোনা অল্প কিছু ছবি ছাড়া প্রতিটি ছবিই সুপারহিট হয়েছিল। প্রিয় মানুষটি সবাইকে ছেড়ে পরপারে পাড়ি দিয়েছেন ২০২১ সালের ১৭ এপ্রিল রাত ১২টা ৩০ মিনিটে। আজ তার প্রথম প্রয়াণ দিবস।

Latest news
Related news