Saturday, October 22, 2022

জিতের কাছে হেরে গেলেন দেব! ছবি মুক্তির আগেই ‘কিশমিশ’কে চোখ রাঙাচ্ছে ‘রাবণ’

অতিমারির প্রভাব কাটিয়ে উঠে ধীরে ধীরে ঘুরে দাঁড়াচ্ছে বাংলা সিনেমা। জিৎ (Jeet), দেব (Dev), প্রসেনজিতরা একে একে নতুন সিনেমা নিয়ে ফিরছেন। বাংলা সিনেমার দৈন্য দশা কাটিয়ে উঠে ধীরে ধীরে ঘুরে দাঁড়াচ্ছে টলিউড। গত দুই বছরে একের পর এক ছবি মুক্তির দিন পিছিয়েছে। তবে দেবের ‘গোলন্দাজ’, ‘টনিক’ এর হাত ধরে আবার বক্সঅফিসে সাফল্যের মুখ দেখছে বাংলা সিনেমা।

তবে এবার দেব এবং জিত কোমর বেঁধে নেমেছেন। শীঘ্রই মুক্তি পেতে চলেছে দেবের ‘কিশমিশ’ (Kishmish) এবং জিতের ‘রাবণ’ (Raavan)! সদ্য মুক্তি পেয়েছে দুটি ছবির ট্রেলার। তবে ট্রেলার প্রকাশ পেতেই দেখা যাচ্ছে দেবকে ছাপিয়ে অনেক আগে এগিয়ে যাচ্ছেন জিৎ। রাবণের কাছে কিশমিশের পরাজয় ‌নিয়ে সোশ্যাল মিডিয়া সরগরম। দুই তারকার অনুরাগীদের মধ্যেও চলছে বিবাদ।

লকডাউনের পর দেব এবং জিৎ এর লড়াইয়ে দেবের কাছে পিছিয়ে পড়েছিলেন জিৎ। গত বছর পুজোর সময় একইসঙ্গে মুক্তি পেয়েছিল দেবের ‘গোলন্দাজ’ এবং জিতের ‘বাজি’। বক্সঅফিসে ভালোই ব্যবসা করেছিল দেবের ছবি। অন্যদিকে মুখ থুবড়ে পড়েছিল ‘বাজি’। তবে এবার পাশা উলটে গিয়েছে। ছবির ট্রেলারে দর্শকদের আগ্রহ দেখে ‌তেমনটাই আন্দাজ করছেন ছবি বিশেষজ্ঞরা।

তিন সপ্তাহ আগে দেবের ‘কিশমিশ’ এর ট্রেলার মুক্তি পেয়েছে। দেব ও রুক্মিণী মৈত্রর জুটিতে চারটি আলাদা আলাদা সময়কালের গল্প তুলে ধরা হবে ছবিতে। ছবির জন্য দেব ও রুক্মিণীর আলাদা আলাদা অবতারও রয়েছে। এই ছবিটির ট্রেলার মুক্তি পাওয়ার ৩ সপ্তাহ পর ভিউ সংখ্যা ৭ লাখ ২০ হাজার পৌঁছেছে।

অন্যদিকে জিৎ এবং নবাগতা লহমা ভট্টাচার্যের জুটিতে মুক্তি পেতে চলেছে ‘রাবণ’। অ্যাকশন-থ্রিলার এবং রোম্যান্সের দুর্দান্ত মিশেলের পাশাপাশি জিতের ‘রাবণ’ লুকও ঝড় তুলেছে অনুরাগীদের মধ্যে। ছবির ট্রেলার মুক্তি পেয়েছে মাত্র ৪ দিন আগে। ইউটিউবে এরই মাঝে ১৫ লক্ষ ভিউ ছুঁয়ে ফেলেছে ছবিটির ট্রেলার। বক্স অফিসেও এর প্রভাব দেখা যাবে বলে মনে করছেন সিনে বিশেষজ্ঞরা।

যদিও দেব এবং জিৎ অবশ্য এই প্রতিযোগিতা নিয়ে মাথা ঘামাচ্ছেন না। দেবের কথায় তিনি বিগত তিন-চার বছর ধরে প্রতিযোগিতা থেকে সরে এসেছেন। বর্তমানে তার লক্ষ্য এমন কিছু কাজ করা যে কাজের সঙ্গে অন্য কিছুর মিল নেই। তিনি তার ছবিতে এমন কিছু গল্প তুলে ধরার চেষ্টা করছেন যে গল্প আগে কেউ বলেনি, কেউ সাহস করেনি মানুষের কাছে পৌঁছে দেওয়ার। অন্যদিকে জিৎ মনে করছেন একসঙ্গে এতগুলো ছবি মুক্তি পেলে বক্স অফিসে তার প্রভাব নিশ্চয়ই পড়বে তবে তাতে বাংলা চলচ্চিত্রের উন্নতি এবং বিকাশ ঘটবে।

Latest news
Related news