Friday, October 21, 2022

‘মাতাল অবস্থায় আমাকে ১৫ তলার বারান্দা থেকে ঝুলিয়ে দিয়েছিল’

প্রতিপক্ষ শিবিরের আতংকের নাম যুজবেন্দ্র চাহাল। ভারতীয় এই স্পিনারের ঘূর্ণিতে কাবু হতে হয় বাঘা বাঘা সব ব্যাটারদের।

অথচ তাকেই কী না হেনস্থার শিকার হতে হয়েছে নিজ দলের খেলোয়াড়ের কাছে।শুধু হেনস্থা নয়, এক মাতালের হাত থেকে মৃত্যুপথ থেকে ফিরে আসতে হয়েছিল।

সময় ২০১৩ সাল, তখনও চাহাল তারকা হয়ে ওঠেননি। চাহাল তখন আইপিএলে নতুন। সে সময় দলের এক খেলোয়াড় ‘মাতাল’ হবার পর হোটেলের ১৫ তলার বারান্দা থেকে ঝুলিয়ে দিয়েছিলেন বলে অভিযোগ রয়েছে।

সম্প্রতি রাজস্থান রয়্যালসের সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে রবিচন্দ্রন অশ্বিনের সঙ্গে লাইভে এসে এমনটাই দাবি করেন চাহাল।

লোমহর্ষক ঘটনার বর্ণনা দিয়ে চাহাল বলেছেন, ‘আমি কখনও এই কথাগুলো বলিনি। কেউ জানেও না। আজ এই ঘটনা সবাইকে আনতে চাই।

২০১৩ সালে আমি যখন মুম্বাই ইন্ডিয়ান্সের হয়ে খেলেছিলাম তখন আমার সঙ্গে ঘটে যায় ভয়ঙ্কর এক ঘটনা। বেঙ্গালুরুতে ম্যাচের শেষে পার্টি চলছিল।

সেখানে একজন ক্রিকেটার প্রচণ্ড মদ্যপান করেছিল। মদ্যপ অবস্থায় ওই ক্রিকেটার আমাকে কাছে ডেকে বারান্দায় নিয়ে যান।

এরপর পেছন থেকে শক্ত করে আমার হাত দুটো ধরে ঝুলিয়ে দেন ১৫তলার বারান্দা দিয়ে! একটা সময় মনে হচ্ছিল আর কিছুক্ষণের মধ্যে সব শেষ হয়ে যাবে।’

চাহাল আরও বলছিলেন, ‘আমি ভয়ে ওকে জড়িয়ে ধরেছিলাম, ওর ঘাড়ে হাত দিয়ে। আমি যদি ওকে না ধরতাম, নিশ্চিত ভাবে ১৫ তলা থেকে নিচে পড়ে যেতাম।

এমন অবস্থায় অনেকে এসে পরিস্থিতি সামাল দেয়। এরপর আমি অজ্ঞান হয়ে পড়ি।’

Latest news
Related news