ফাইনাল শেষে বাংলাদেশ নিয়ে যা লিখলো আর্জেন্টাইন গণমাধ্যম

Share

ফ্রান্সের বিপক্ষে জয়ে তৃতীয় শিরোপা ঘরে তোলার পর বাংলাদেশের জয় উদযাপনের খবর ছেপেছে দেশটির অন্যতম সংবাদ মাধ্যম বুয়েন্স আয়ার্স টাইমস। সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমের কল্যাণে মেসির আর্জেন্টিনার প্রায় সকলেই কাছেই এখন পরিচিত বাংলাদেশের নাম। কাতারে বাংলাদেশি হিসেবে পরিচয় দিলে আর্জেন্টাইনদের কাছ থেকে পাওয়া যাচ্ছে বাড়তি সম্মান।

আর্জেন্টিনার জয়ে যত না উল্লাসে মেতেছেন দেশটির রাজধানী বুয়েনস আয়ার্সের মানুষ। তার থেকে কম উদযাপন হয়নি বাংলাদেশে। দেশের প্রতিটি কোনায় ছড়িয়ে থাকা আর্জেন্টাইন সমর্থকরা নেচে গেয়ে বিজয় উদযাপন করেছে। সেই খবরটিই বড় করে ছেপে আর্জেন্টাইনদের জানিয়েছে তাদের সংবাদ মাধ্যম বুয়েন্স আয়ার্স টাইমস।

তারা তাদের প্রতিবেদনে লিখেছে, ফ্রান্সের বিপক্ষে জয়ের পর রাজধানী ঢাকার গুরুত্বপূর্ণ চত্বর, রাস্তা ও ফুটবল মাঠ সবখানেই বড় পর্দায় খেলা দেখেছে হাজার হাজার মানুষ। শীতের তীব্রতা ছাপিয়ে আর্জেন্টিনার জয়ের পর উদযাপন করেছে দেশটির হাজারো মানুষ। যাদের অনেকেই মেসির হাতে শিরোপা দেখে আনন্দে কেঁদে ফেলেছেন। মেসি মেসি ধ্বনিতে রাতভর আর্জেন্টিনার জার্সি গায়ে পতাকা মিছিল করেছে দেশটির আর্জেন্টাইন সমর্থকরা।

১৮ বছর বয়সী মেসি ভক্ত নাফিউন রহমান জিয়ান আর্জেন্টিনার জয়ের পর কেঁদে ফেলেছেন। তিনি বলেন, ‘আমি জানি না কেন আমি কাঁদছি, তবে আমি তার (মেসির) জন্য কাঁদছি। আমার জীবনের ভালোবাসা মেসির হাতে বিশ্বকাপ দেখতে বছরের পর বছর অপেক্ষার শেষ হয়েছে। ক্ষুদে জাদুকর, সবচেয়ে মর্যাদাপূর্ণ ট্রফিটি ধরে রেখেছেন যা তিনি খুব করে চেয়েছিলেন।

ওই প্রতিবেদনে আরো বলা হয়েছে ১৭০ মিলিয়ন জনসংখ্যার বাংলাদেশ মূলত ক্রিকেট পাগল জাতি। বিশ্বের অন্যতম সেরা ক্রিকেট দল তাদের। যদিও ফুটবলে দেশটির অবস্থান তলানিতে।

ওই প্রতিবেদনে আরো বলা হয়েছে, কিলিয়ান এমবাপ্পের জোড়া গোলে ম্যাচটি অতিরিক্ত সময়ে ২-২ তে চলে যাওয়ায় সময় ভয়ঙ্কর নীরবতায় নেমে এসেছিল বাংলাদেশে।

৪০ বছর বয়সী মোটরবাইক চালক আবদুস সবুর বলেন, ‘আমার মনে হচ্ছিল আমি হার্ট অ্যাটাকের শিকার হব। এমবাপ্পের বয়স ২৩। সে আরও তিনটি বিশ্বকাপ খেলতে পারবে। এবার কাপটা মেসির হাতেই যাওয়া উচিত। ’

১৯ বছর বয়সী মোহাম্মদ হাসান বলেন, ‘আমার অনেক বন্ধু, বিশেষ করে যারা ব্রাজিলকে সমর্থন করে, তারা আমাকে এবং আর্জেন্টিনার সহকর্মী সমর্থকদের কটূক্তি করেছিল যে ১৯৮৬ সালের বিশ্বকাপ থেকে আমরা কিছুই জিততে পারিনি। মেসি প্রমাণ করেছেন তিনি বিশ্বের সেরা খেলোয়াড়। তিনি ডিয়েগো ম্যারাডোনা বা তার প্রতিদ্বন্দ্বী ক্রিশ্চিয়ানো রোনালদোর চেয়েও বড়। বিতর্ক শেষ হয়েছে। ’

প্রতিবেদনটিতে আরো লেখা হয়, বাংলাদেশের আর্জেন্টিনা-ব্রাজিল প্রতিদ্বন্দ্বিতা দেখাতে গ্রামীণ শহরে সমর্থকরা তাদের বাড়িগুলি নিজ নিজ দলের পাতাকার আদলে রঙে রাঙিয়েছে। পুলিশের মতে, বাড়ির উপর প্রিয় দলের জাতীয় পতাকা প্রদর্শনের চেষ্টা করতে গিয়ে বিদ্যুৎস্পৃষ্ট হয়ে এবং ছাদ থেকে পড়ে যাওয়ার পরে অন্তত সাতজন লোক মারা গেছেন। যা প্রমাণ করে বাংলাদেশের মানুষের আর্জেন্টিনার প্রতি তীব্র অনুরাগ।

You may also like...

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *